Swara vs Food Vlogger: স্বরা ভাস্করকে বডি শেমিং করায় ক্ষমা চাইলেন!

Spread the love

সোশ্যাল মিডিয়ায় তুলকালাম অভিনেত্রী। ‘বডি শেমিং’ ও ‘নিরামিষভোজী’ পোস্ট নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় তুলকালাম অভিনেত্রী স্বরা ভাস্কর ও ফুড ভ্লগারের। যা শুরু হয়েছে ইদের দিন থেকেই। এখনও শেষ হওয়ার নাম নিচ্ছে না। সম্প্রতি সেই ফুড ভ্লগার নলিনী তাঁর আগের টুইটগুলির পিছনে থাকা উদ্দেশ্য ব্যক্ত করতে, করলেন এক লম্বা পোস্ট। আর সেই টুইটে প্রতিক্রিয়া জানালেন স্বরা নিজেও। 

নলিনীর টুইট:

নলিনী লেখেন, ‘আমি ভাল কাজ করছিলাম, কিন্তু আপনি আমার নিরামিষভোজী পোস্টে ঘৃণা ছড়িয়ে আমার পথে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন। আমি নিয়মিত নিরামিষভোজনের প্রচার করি, এবং এই পোস্টটি ছিল তারই একটি অংশ মাত্র। আপনার প্রতিক্রিয়া এটিকে সাম্প্রদায়িক ইস্যুতে পরিণত করেছে, যে কারণে আমি সেদিন প্রতিক্রিয়া জানাইনি। আপনার খাবারের পছন্দ আপনার নিজস্ব, এবং এতে আমার কোনও সমস্যা নেই। তবে আমি নিরামিষভোজন করতে ও তা প্রচার করার ব্যাপারে স্বাধীন। হ্যাঁ, আমি নিরামিষাশী এবং বুঝতে পারি যে দুধ পানও কোনও না কোনওভাবে নিষ্ঠুর। আমি যখন ভেগান হতে পারব, তখন নিজেকে নিয়ে আরও গর্ব বোধ করব।’তিনি আরও লেখেন, ‘আপনি আমার পোস্টকে সাম্প্রদায়িক ইস্যুতে পরিণত করেছেন। আপনার একটি বিশাল ফ্যান বেস রয়েছে, তাই এই জাতীয় মন্তব্য করার আগে দয়া করে দু’বার ভাবুন। আপনার কথাগুলো সমাজে প্রভাব ফেলতে পারে এবং আমার মতো মানুষের জন্য বড় ধরনের সমস্যার কারণ হতে পারে। আপনার ছবি পোস্ট করা নিয়ে আমি আমার ভুল স্বীকার করছি এবং শীঘ্রই সেগুলি মুছে ফেলব। ভয় পাবেন না, আপনার ভুল স্বীকার করুন এবং আমার বিরুদ্ধে ঘৃণা সরিয়ে ফেলুন। শুভ হোক সকাল। প্রাতঃরাশ উপভোগ করুন’।

স্বরার জবাব নলিনীকে

এর জবাব দিয়ে স্বরা টুইট করেন, ‘আসুন একটু বিস্তারে কথা বলি। আপনি বিরক্ত হয়েছেন যে আমি আপনার ভেজ-সুপ্রিমেসি পোস্ট নিয়ে আওয়াজ তুলেছিলাম- স্পষ্টতই বকর-ঈদে মুসলমানদের টার্গেট করার উদ্দেশ্যে আপনার সেই পোস্ট ছিল। ঠিক আছে, আপনি আমার সঙ্গে নিরামিষভোজী হওয়া নিযে কথা বলার পরিবর্তে, আপনি আমার ওজন নিয়ে কটাক্ষ করেছেন। একটি শিশুর বুকের দুধ খাওয়ানো মাকে লজ্জা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ?? আপনি কি পুষ্টিবিদ?’

নলিনীর বডি-শেমিং করেন স্বরাকে

নলিনী এরপর এক্স-এ একটি কোলাজ শেয়ার করেছেন। যাকে বিয়ের আগে স্বরার একটি পুরানো ছবি এবং অন্যটি তার বিয়ে এবং সন্তানের জন্মের পরের। ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘কী খেয়েছিলেন’? টুইটের জবাবে স্বরা লেখেন, ‘ওর একটা বাচ্চা হয়েছে। আরও ভালো কিছু ভালো নলিনী!”

২০২৩ সালের ফেব্রুয়ারিতে সমাজবাদী পার্টির নেতা ফাহাদ আহমেদের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধেন স্বরা। এক মাস পরে, তাঁরা বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিল যার মধ্যে হলুদ, সংগীত এবং বিবাহের সংবর্ধনা অন্তর্ভুক্ত ছিল। ওই বছরই জুন মাসে নিজের অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর জানান স্বরা। স্বরা এবং ফাহাদ গত বছরের ২৩ সেপ্টেম্বর তাদের প্রথম সন্তান রাবিয়াকে স্বাগত জানিয়েছিলেন।

ঝগড়া কখন শুরু হয়েছিল

তর্ক শুরু হয়েছিল কিছুদিন আগে নলিনী এক্স-এ তার নিরামিষ খাবারের একটি ছবি শেয়ার করার পরে। তিনি লেখেন, ‘আমি নিরামিষভোজী হতে পেরে গর্বিত। আমার প্লেট অশ্রু, নিষ্ঠুরতা এবং অপরাধবোধ থেকে মুক্ত।’এর উত্তরে স্বরা লেখেন, ‘সত্যি বলছি… নিরামিষাশীদের এই আত্ম-ধার্মিকতা আমি বুঝতে পারি না। আপনার পুরো ডায়েটটি একজন বাছুরকে তার মায়ের দুধ থেকে বঞ্চিত করার দ্বারা গঠিত .. জোর করে গরুকে গর্ভবতী করার পর তাদের বাচ্চাদের কাছ থেকে আলাদা করে তাদের দুধ চুরি করে। আপনি রুটি সবজি খান? এতে তো পুরো গাছটাই মেরে যায়! বকরি ঈদ বলে হঠাৎ এই পূণ্যের পোস্টটি করলেন (হাত জোড় করে ইমোজি)।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *