T20 WC 2024 -এ কি ২০২২ সালের বিশ্বকাপের পুনরাবৃত্তি হবে?

Spread the love

বৃহস্পতিবার গায়ানায় ভারতের বিরুদ্ধে সেমিফাইনাল ম্যাচের জন্য প্রস্তুত ইংল্যান্ড দল। এই ম্যাচের আগে, ইংল্যান্ড দলের প্রধান কোচ ম্যাথিউ মট স্পষ্ট করে দিয়েছেন যে এই দলটি গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল নিয়ে মোটেও ভাবছে না। ২০২২ সালের বিশ্বকাপে তারা অ্যাডিলেডে খেলা সেমিফাইনালে ভারতকে হারিয়েছিল। ম্যাথিউ মট বলেছেন যে বিগত দিনগুলি অতিবাহিত হয়েছে। এখন দলটি নতুন করে ফোকাস করছে এবং তাদের লক্ষ্য এই সেমিফাইনাল জিতে ফাইনালে তাদের দাবি উপস্থাপন করবে। খেলোয়াড়দের মধ্যে এই ম্যাচে ভালো করার ক্ষুধা ও সংকল্প দুই রয়েছে।

ম্যাথিউ মট আরও বলেছেন, ‘যদি আমরা সেই সেমিফাইনালের দিকে তাকাই, এটি অ্যাডিলেডের একটি ভালো পিচে অনুষ্ঠিত হয়েছিল, যেখানে আমরা ভারতকে ব্যাট করতে পাঠিয়েছিলাম এবং সেটি একটি ঝুঁকি ছিল। কিন্তু আমার মনে হয় তারা তখন বুঝতে পারেনি ওই পিচে সঠিক স্কোর কী হবে।’ মট আরও বলেছেন, ‘আমার মনে হয় এবার তারা সম্ভবত আরও শক্তি নিয়ে আমাদের আক্রমণ করার চেষ্টা করবে। তাদের চেষ্টা থাকবে পাওয়ারপ্লেতে যতটা সম্ভব রান করা এবং লক্ষ্য আমাদের নাগালের বাইরে নিয়ে যাওয়া। আমি মনে করি এই ম্যাচে আমরা দুটি খুব ভালো ব্যাটিং দল দেখতে পাব। দুজনেরই দুর্দান্ত বোলার আছে। তাই আমি মনে করি ম্যাচের দিনটি হবে সেই দলের জন্য যারা সবার আগে কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নেবে এবং প্রতিপক্ষ দলকে ব্যাকফুটে ঠেলে দেবে।’

এই ম্যাচের আগে ম্যাথিউ মট এটাও স্বীকার করেছেন যে এই টুর্নামেন্টে এখন পর্যন্ত শান্ত থাকা বিরাট কোহলি ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে নকআউটে দারুণ খেলতে পারেন। তিনি বলেছেন যে বিরাট গত কয়েক বছর ধরে ক্রমাগত নিজেকে প্রমাণ করেছেন। ম্যাথিউ মট আরও বলেন, ‘একটি সাধারণ ধারণা হল যে আমাদের দলই সেরা। আমি মনে করি আমরা প্যাচগুলিতে বেশ ভালো ছিলাম, আমরা এখানে কিছু সত্যিই ভালো জিনিস করেছি, কিন্তু আমরা সেই নিখুঁত খেলাটি একসঙ্গে খেলতে হবে। তাই, কিছুটা ভাগ্যকে সঙ্গে নিয়ে ভারতের বিরুদ্ধে খেলতে নামতে হবে, এটি অবশ্যই একটি দুর্দান্ত ম্যাচ হতে চলেছে।’

টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের এই সেমিফাইনালটিকে ২০২২ সালের টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পুনরাবৃত্তি হিসাবে বিবেচনা করা হচ্ছে। দু বছর আগে এই দুটি দল একে অপরের মুখোমুখি হয়েছিল। এবার ভারতের কাছে আগের হারের প্রতিশোধ নেওয়ার দারুণ সুযোগ রয়েছে এবং এই ভারতীয় দল এখন পর্যন্ত টুর্নামেন্টে অপরাজেয়। ইংল্যান্ডের কোচ ম্যাথিউ মটকে যখন ২০২২ সালের বিশ্বকাপ সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, তখন তিনি বলেছিলেন, ‘আমরা এই দলের সঙ্গে মোটেও পিছনে ফিরে তাকাচ্ছি না। আমাদের একটি বড় মন্ত্র হল বর্তমানে থাকা। আমরা গতবার যে দলটির মুখোমুখি হয়েছিলাম তার থেকে এবার দলটি সম্পূর্ণ ভিন্ন।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *