Terror attack in russia: বন্দুকবাজদের গুলিতে পুলিশ সহ নিহত ১৫

Spread the love

ইউক্রেনের(Ukrain) সঙ্গে রাশিয়ার(Russia) যুদ্ধ এখনও চলছে। ঘটনায় পাদরি-সহ কমপক্ষে ১৫ জন পুলিশ কর্মী নিহত হয়েছেন। এছাড়াও আহত হয়েছেন ১২জন। তিন মাসের মাথায় ফের রাশিয়ার অভ্যন্তরে চলল সন্ত্রাসী হামলা(Terror Attack)।অন্যদিকে, পুলিশের গুলিতে ৬ বন্দুকধারী নিহত হয়েছে।  রবিবার ঘটনাটি ঘটেছে রাশিয়ার দাগেস্তানের রাজধানী মাখাচকালা এবং উপকূলীয় শহর ডারবেন্টে এই হামলার ঘটনা ঘটেছে।

দাগেস্তানের প্রশাসন এদিনের হামালকে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলা বলেই দাবি করেছে।  জানা যাচ্ছে, দুপক্ষের গুলির লড়াইয়ে মাখাচকালায় ৪ জন এবং ডারবেন্টে দু’জন বন্দুকধারী নিকেশ হয়েছে। পুলিশ কর্মীদের পাশপাশি বেশ কয়েকজন সাধারণ নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে এদিনের হামলার ঘটনায়। ডারবেন্টের একটি গির্জায় ৪০ বছর ধরে নিযুক্ত থাকা এক পাদরি এদিনের হামলায় প্রাণ হারিয়েছেন।  দেশটির বেশ কয়েকটি ধর্মীয় উপাসনালয় ও পুলিশকে লক্ষ্য করে অজ্ঞাত পরিচয় বন্দুকধারী দুষ্কৃতীরা হামলা চালায়।দাগেস্তানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, আচমকা ডারবেন্ট শহরের একটি ইহুদি উপাসনালয় (সিনাগগ) এবং গির্জায় বন্দুকধারী দুষ্কৃতীরা হামলা চালাতে শুরু করে। তারা এলোপাতাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে। এর ফলে প্রাণহানির পাশাপাশি গির্জায় এবং সিনাগগে আগুন লেগে যায়। ঠিক সেই সময়ই রাজধানীতে একটি গির্জা এবং পুলিশ পোস্টে হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা।

সন্ত্রাসবিরোধী কমিটি জানিয়েছে যে ৬ জন বন্দুকধারীকে খতম করা সম্ভব হয়েছে। যদিও কতজন দুষ্কৃতী হামলার সঙ্গে জড়িত ছিল তা এখনও জানা যায়নি। প্রাথমিকভাবে এটিকে জঙ্গি হামলা বলে মনে করছে প্রশাসন। তবে এখনও পর্যন্ত কোনও জঙ্গিগোষ্ঠী হামলার দায় স্বীকার করেনি। যার মধ্যে অনেকের অবস্থা আশঙ্কাজনক।এদিকে, এই ঘটনার জেরে ২৪ থেকে ২৬ জুন পর্যন্ত এই হামলার জন্য দাগেস্তানে শোকপালন করা হবে। ঘটনায় সমস্ত বিনোদনমূলক অনুষ্ঠান বাতিল করেছে প্রশাসন। এই ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে রুশ তদন্তকারী কমিটি। প্রাথমিকভাবে জানা যাচ্ছে মধ্য দাগেস্তানের সার্গোকালা জেলা প্রধানের দুই ছেলে এই হামলার ঘটনার সঙ্গে জড়িত। তাদের ইতোমধ্যে আটক করেছে পুলিশ। প্রসঙ্গত, গত মার্চ মাসে রাশিয়ার রাজধানীতে  হামলা চালিয়েছিল সন্ত্রাসীরা। সেই হামলায় ১৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছিল। ঘটনায় ইসলামিক স্টেট জঙ্গিগোষ্ঠী হামলার দায় স্বীকার করেছিল।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *